ডিলিট ফাইল রিকভার করার অসাধারন টিপস এন্ড ট্রিক্স

ডিলিট ফাইল রিকভার

ডিলিট ফাইল রিকভার করুন সহজেই- মেগা টিপস


ডিলিট ফাইল রিকভারঃ আমরা নিজের অজান্তে অনেক সময় কম্পিউটার থেকে অনেক প্রয়োজনীয় ফাইল ডিলিট করে ফেলি। ডিলিট ফাইল রিকভার করা যায়। আমরা অনেকেই রিকোভারী সম্পর্কে অনেকে জানি আবার অনেকেই জানেন না।

আবার দেখা যায় অনেকেই আছেন জানেন কিন্তু সঠিক রিকভারী কি ভবে করতে হয় তা জানেন না। যার রিকভারী সম্পর্কে একেবারেই জানেন না আমি তাদের জন্য আজকের এই লেখা।

চলুন জেনে নেয়া যাক রিকভারি কি?

আপনার কম্পিউটার থেকে একটি জরুরী  কোন ডকুমেন্ট  ডিলেট/ফরম্যাট করে দিলেন বা ভুলেবসত ফরম্যাট/ডিলেট হয়ে গেল। কিন্তু ডকুমেন্ট আপনার খুব দরকার। সেই ডকুমেন্ট গুলো উদ্ধার করার জন্য যে পদ্ধতি অবলম্বন করা হয় তাকে রিকভারী বলা হয়।

রিকভারী করার পূর্বে কিছু কথাঃ

যারা রিকভারী সম্পর্কে জানেন না বা জানেন কিন্তু কি ভাবে রিকভারী করতে হয় তা জানেন না, আমি তাদের জন্য আজকে দেখাবো যে, কি ভাবে সহজ পদ্ধতিতে রিকভারী করা যায়।

প্রথমেই আমি একটা কথা বলে নিচ্ছি যে, এই নরমাল ভাবে রিকভারী করে কিন্তু সব সময় সব ধরনের ডকুমেন্ট উদ্ধার করা সম্ভব হয় না, আবার অনেক সময় দেখা যায়, যে খুব ভালো রিকভারী হয়। আর এই সাধারন সফটয়্যার দিয়ে খুব ভালো রিকভারী করতে হলে, অবশ্যই আপনার হার্ড ডিস্ক ভালো হতে হবে। আমি নিজেই অনেক রিকভারী করেছি এবং অন্যজনকেও করে দিয়েছি, আর এই রিকভারী করতে গিয়ে আমার যে একটি অভিজ্ঞতা হয়েছে বা আমার যেটা মনে হয়- যে হার্ড ডিস্কে যদি বেডসেক্টর থাকে বা হার্ড ডিস্ক দূর্বল থাকে, তাহলে ঐ হার্ড ডিস্ক দিয়ে খুব ভালো রিকভারী করা যায় না। কিন্তু এই সাধারন রিকভারী করে অডিও,ভিডিও,ইমেজ,ওয়ার্ড, এক্সেল এ সমস্থ ফাইল গুলো খুব সহজেই পুনরুদ্ধার করতে পারবেন।

READ  ইউটিউব কিভাবে ব্যবহার করবেন?- ইউটিউব টিপস

তাহেলে শরু করা যাক- ডিলিট ফাইল রিকভারঃ

রিকভারী করার জন্য প্রথমে আপনাকে একটি রিকভারী সফটয়্যার নামাতে হবে। রিকভারী করার জন্য ইন্টারনেটে অনেক ধরনের ফ্রি সফটয়্যার পাওয়া যায়। কিন্তু সব সফটয়্যার দিয়ে খুব ভালো রিকভারী করা যায় না। তাই আমি আপনাদেকে খুব ভালো(এই সফটয়্যার গুলো আমি নিজে ব্যবহার করি) দুটি সফটয়্যার নাম বলবো-

১) Recuva  ->   Download 1  / Download 2

২. EasyRecovery Professional ->  Download 1 / Download 2

ডাউনলোড লিংকে ক্লিক করে কিছুক্ষন সময় অপেক্ষা করুন, তার পর ডাউনলোড অপসন আসলে ডাউনলোড করুন।

এখান থেকে যে সফটয়্যারটি আপনার ভালো লাগে আপনি সেটা ব্যাবহার করতে পারেন। তবে আমি আপনাদের Recuva Software টি ব্যবাহার করার জন্য বলবো। কারন এই সফটয়্যর দিয়ে রিকভারী করতে অনেক কম সময় লাগে এবং খুব ভালো রিকভারী হয়।

চলুন Reuva দিয়ে আপনি কিভাবে ডিলিট ফাইল রিকভার করবেন।

১) প্রথমে সফটওয়ারটি ডাউনলোড করুন।

ডিলিট ফাইল রিকভার

এরপর ডাউনলোড করা ফাইলটির উপর ডাবল ক্লিক করুন। প্রচলিত সফটওয়্যার ইন্সটল এর মত ইন্সটল করে ফেলুন।

নীচের ছবিগুলো স্টেপ বাই স্টেপ দেখে ইন্সটল করে ফেলুন-

আপনার ইন্সটল শেষ।

২) এখন সফটওয়ার টি ওপেন করুন। করে নেক্সট এ ক্লিক করুন। নীচের ছবি টি ভাল করে লক্ষ করুন-

৩) নীচের ছবির মত উপরের অপশান টি সিলেক্ট করুন-

৪) নেক্সট দিয়ে “I am not sure” সিলেক্ট করুন। নেক্সট দিন

৫) স্টার্ট এ ক্লিক করুন

৬) খুব ভালো ভাবে রিকোভারী করার জন্য প্রথমে “এনেবাল ডিপ স্কান” এ ক্লিক করুন, কিন্তু এ ক্ষেত্রে সময় বেশি লাগতে পাররে। তার পর ‍স্টার্ট এ ক্লিক করুন।

৭) এবার দেখুন রিকোভারী হচ্ছে।

৮) এখানে থেকে আপানার মুছে যাওয়া ফাইল গুলোকে সিলেক্ট করুন। যে ফাই গুলো লার চিন্হিত করা, সে গুলো কাজ না করার সম্ভাবনাই বেশী।

READ  বাংলায় গুগুল এডসেন্স একাউন্ট নিয়ে বিস্তারিত তথ্য

৯) রিকোভারী বাটনে ক্লিক করুন।

১০) আপনার রিকোভারী করা ফাইল গুলো যেখানে রাখবেন, সে স্থানটিকে সিলেক্ট করে দিন।

 

ব্যস। আপনার কাজ শেষ। আপনার ডিলিট হওয়া সব ফাইল আপনার সিলেক্ট হওয়া ড্রাইভ বা ফোল্ডারে সেইভ হওয়া শুরু হয়ে যাবে।

আপনি পুরো প্রসেস না বুঝতে পারলে আমাকে ম্যাসেজ করতে পারেন, নীচে কমেন্ট করতে পারবেন।

সবাইকে অনেক ধন্যবাদ আমার আজকের আর্টিকেল টি পড়ার জন্য।

 

(Visited 1 times, 1 visits today)
Read previous post:
ইউটিউব কিভাবে ব্যবহার করবেন?
ইউটিউব কিভাবে ব্যবহার করবেন?- ইউটিউব টিপস

ইউটিউব কিভাবে ব্যবহার করবেন- ইউটিউব টিপস ২০১৮ জনপ্রিয় ওয়েবসাইটগুলোর মধ্যে অন্যতম শীর্ষস্থানে রয়েছে ইউটিউব। প্রায় ১০০ কোটিরও বেশি মিলিয়ন মিলিয়ন ব্যবহারকারী...

Close